২৬ জানুয়ারি নারায়ণগঞ্জে আসছেন প্রধানমন্ত্রী

নারায়ণগঞ্জ মেইল: পাতাল রেলের ভিত্তিপ্রস্তুর নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করতে ২৬ জানুয়ারি নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে আসছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। দেশের সবচেয়ে ব্যয়বহুল এই আধুনিক প্রকল্প নির্মাণ কাজের সূচনা হবে রূপগঞ্জের পূর্বাচল থেকে। দিনটিকে সাফল্যমন্ডিত করতে ইতিমধ্যেই প্রস্তুতি শুরু করেছেন নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসন, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী এবং জনপ্রতিনিধিগণ। একই সাথে দলের হাই কমান্ডকে স্বাগত জানাতে প্রস্তুতি নিচ্ছেন নারায়ণগঞ্জের আওয়ামী লীগ ও সহযোগি সংগঠনের নেতারা।

মঙ্গলবার (১৭ জানুয়ারি ) সকাল ১১টায় জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এই বিষয়ে প্রস্তুতি মূলক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সভায় সরকারের বিভিন্ন দফতরের কর্মকর্তাদের পাশাপাশি জনপ্রতিনিধি ও রাজনীতিবীদরা অংশ নেন।

 

জেলা প্রশাসক মঞ্জুরুল হাফিজের সভাপতিত্বে প্রস্তুতি সভায় অংশ নেন নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী, পুলিশ সুপার গোলাম মোস্তফা রাসেল, নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবদুল হাই, সাধারণ সম্পাদক আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহীদ বাদল, সাবেক সহ-সভাপতি আব্দুল কাদির, রূপগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শাহজাহান ভূঁইয়া, বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের পরিচালক ও রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি গোলাম মর্তুজা পাপ্পা এবং এমআরটি প্রকল্পের দায়িত্বশীল কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

 

সভা সূত্রে জানা গেছে, নারায়ণগঞ্জের অন্যান্য উন্নয়নমূলক কাজের তালিকা চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ২৬ রূপগঞ্জের পূর্বাচলে পাতাল রেলের নির্মাণ কাজ উদ্বোধন কালে তিনি নারায়ণগঞ্জের বিগত এবং ভবিষ্যত উন্নয়ন মূলক কর্মকান্ড তুলে ধরতে চান।

 

এদিকে, উদ্বোধন অনুষ্ঠানকে জনসভায় রূপ দেয়ার পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে। এদিন নারায়ণগঞ্জ থেকে আওয়ামী লীগের লক্ষাধিক কর্মী সমর্থক পূর্বাচলে সমবেত হবেন। এই জনসমাগম নিশ্চিত করার জন্য নারায়ণগঞ্জের আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের দিক নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

 

তথ্য মতে, রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতির দায়িত্বে আছেন বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী ও স্থানীয় এমপি গোলাম দস্তগীর গাজী (বীরপ্রতিক)। পূর্বাচলে প্রধানমন্ত্রীকে বরণ করা এবং অনুষ্ঠানকে সাফল্যমন্ডিত করার লক্ষে ইতিমধ্যেই তিনি ব্যক্তিগত ভাবে প্রস্তুতি শুরু করেছেন। স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও সহযোগি সংগঠনের নেতাকর্মীদের সাথে বৈঠকও করেছেন। রূপগঞ্জ থেকে তার নেতৃত্বে ১ লক্ষ নেতাকর্মী পূর্বাচলে উপস্থিত হবে বলে প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন মন্ত্রী।

 

অন্যদিকে, নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের নেতারাও কর্মী-সমর্থক নিয়ে পূর্বাচলে যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

 

প্রসঙ্গত, গত পহেলা জানুয়ারি নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে বানিজ্য মেলা উদ্বোধনে এসেছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ২৬ দিনের ব্যবধানে ৫২ হাজার কোটি টাকা ব্যায়ের পাতাল রেলের নির্মাণ কাজ উদ্বোধনে আবারও রূপগঞ্জে আসবেন তিনি। এমআরটি-১ প্রকল্পের এই পাতাল রেল রাজধানীর কমলাপুর থেকে বিমানবন্দর পর্যন্ত বিস্তৃত হবে। প্রকল্পের দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ভবিষ্যতে এমআরটি-৪ প্রকেল্পর আওতায় অন্তর্ভূক্ত হবে নারায়ণগঞ্জ জেলা। এর ফিজিবিলিটি স্টাডিও চলমান রয়েছে।

Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments

নারায়ণগঞ্জ মেইলে এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

সর্বশেষ